top of page
Search

অব্রাহাম কিভাবে তার পুত্র ঈসাহাকের কোরবানির পরীক্ষার দ্বারা পিতা ঈশ্বরের প্রতিকৃতি বহন করেছিলেন?



প্রিয়পাঠক, আমরা অব্রাহামের পুত্র ঈসাহাকের কোরবানি পরীক্ষার তাৎপর্য অনুসন্ধান করতে গিয়ে এমন কিছু স্বর্গীয় রহস্যের তত্ত্বজ্ঞানের বিষয় জানতে পেরেছি যা আমাকে বিমহিত করেছেন। কেননা আমি যতই পবিত্র বাইবেলের এই অংশ পড়ছি, ততই অবাক হচ্ছি। তাই আজ আমি আপনাদের সাথে অব্রাহামের পুত্র কোরবানি পরীক্ষার দ্বারা, তিনি যে পিতা ঈশ্বরের প্রতিকৃতি বহন করেছেন, তা আপনাদের সাথে শেয়ার করছি,  যেন তা জানার মধ্যে দিয়ে আমরা ঈশ্বরের একজাত পুত্রকে সমস্ত জগতের পরিত্রাণের জন্য, পিতা ঈশ্বর দান করেছেন, সেই সুসমাচারের সত্যকে আরো গভির ভাবে উপলব্ধি করতে পারি, তাই নয় কি?


পবিত্র বাইবেল যদিও এটি বলে যে, ভাববাদীরা সম্ভবত প্রতীক নন, কিন্তু অব্রাহাম তাঁর একমাত্র পুত্র ঈসাহাককে দুঃখভোগ করতে, ঈশ্বরের উদ্দেশ্য কোরবানি করতে, ক্রুশের যন্ত্রণা ও কষ্টকে উপলব্ধি করতে, তার পুত্রকে ক্রুশের উপরে মৃত্যুবরণ করতে পাঠিয়ে, নিশ্চিতভাবে পিতা ঈশ্বরের প্রতিকৃতি বহন করেছেন। এটি নিশ্চিতভাবে আদিপুস্তক ২২:২ পদে আমাদের সামনে পিতা ঈশ্বরের হৃদয়ের একটি চিত্র প্রকাশ করেছেন।


অব্রাহাম তার পুত্রকে, যাকে তিনি ভালবাসেন, তাকে নিয়ে চলেছেন কালভেরী পর্ব্বতে, যেটি মোরিয়া পর্ব্বতের অনুরূপ একই শৈলশ্রেনীতে অবস্থিত, এবং মানব জাতির পাপের ঋণ শোধ করার জন্য যেমন ঈশ্বর তাঁর একজাত পুত্র যীশুকে ক্রুশের উপরে উৎসর্গ করছেন। আদিপুস্তক ২২:৯ পদটি দেখুন, দ্বিতীয় অর্দ্ধটি। অব্রাহাম ‘‘আপন পুত্র ইসাহাককে বাঁধিয়া, বেদীতে কাষ্ঠের উপরে রাখিলেন। এই বিষয়ে আমার বক্তব্য হচ্ছে , ‘‘অব্রাহাম, পিতা ঈশ্বরের স্বরূপ, যিনি ‘নিজ পুত্রের প্রতি মমতা করিলেন না, কিন্তু আমাদের সকলের নিমিত্ত তাঁহাকে সমর্পণ করিলেন’ [রোমীয় ৮:৩২]।আমরা কি যোহন ৩:১৬ পদটি এতবার শুনেছি যে আমরা আর এর বিষয়ে খুব একটা চিন্তা করি না?


‘‘কারণ ঈশ্বর জগতকে এমন প্রেম করিলেন যে, আপনার একজাত পুত্রকে দান করিলেন...’’ (যোহন ৩:১৬)।


প্রিয়পাঠক, যখন আপনি আদিপুস্তক ২২:২ এর দিকে আবার দৃষ্টি নিবদ্ধ করছেন তখন যোহন ৩:১৬ পদের কথাও চিন্তা করুন,


‘‘এখন তোমার পুত্রকে নাও, তোমার অদ্বিতীয় পুত্রকে...যাহাকে তুমি ভালবাস...এবং তথায় তাহার বলিদান কর’’ (আদিপুস্তক ২২:২)।


আমি মনে করি যে, ‘‘শেষ তিন ঘন্টা সময় ধরে, সেই ক্রুশ যজ্ঞ বেদীতে পরিনত হয়েছিল যাহার উপরে ঈশ্বরের মেষশাবক যিনি জগতের সমস্ত পাপ গ্রহণ করিয়াছিলেন তাঁহাকে উৎসর্গ করা হয়েছিল। ক্রুশের উপরে পিতা এবং পুত্রের মধ্যে পরিত্রাণের উদ্ধারের চুক্তি সম্পাদিত হয়েছিল...এইস্থানেও সেই একই অনুরূপ চিত্র: এইস্থানে কেবল অব্রাহাম এবং ইসাহাক রয়েছেন, তাই নয় কি?


আমি বলছি যে, পিতা [ঈশ্বর] এবং তাঁর পুত্র যীশু খ্রীষ্টের মধ্যে শেষের সেই কয়েক ঘন্টার নিদারুন যন্ত্রণার সময়ে কি ঘটেছিল তা আমরা কখনই উপলব্ধি করিতে সক্ষম হবো না। কেননা ইহা ছিল পিতা এবং পুত্রের মধ্যকার উদ্ধার চুক্তি সম্পাদন।কোন মনুষ্য চক্ষু সেই দৃশ্য দেখিতে পায় নাই [কারণ  সমস্ত চরাচর অন্ধকারে পরিপূর্ণ ছিল]...যখন সেই চূড়ান্ত সন্ধিক্ষণ উপস্থিত হয়েছিল এবং চূড়ান্ত কোরবানি সম্পাদিত হয়েছিল, ঈশ্বর [অন্ধকার পাঠিয়েছিলেন]...যতক্ষণ না চূড়ান্তভাবে সর্ব্বোচ্চ সীমায় চরম মানসিক যন্ত্রণাদায়ক ক্রন্দন [ক্রুশের উপর হইতে যীশুর ক্রন্দন] প্রকাশিত হয়েছিল,


‘'ঈশ্বর আমার, ঈশ্বর আমার, তুমি কেন আমায় পরিত্যাগ করিয়াছ?’’


এটি অবশ্যই ইসাহাকের আসন্ন মৃত্যুর ঘটনা দ্বারা অব্রাহামের হৃদয় বিদীর্ণ হয়েছিল। এবং, এটি কেবারেই একইরকম ভাবে নিশ্চিত যে, ঈশ্বরের হৃদয়ও অব্রাহামের মত বিদীর্ণ হয়েছিল যখন তিনি, ক্রুশের উপর তাঁর পুত্র যীশুর প্রতি মুখ ফিরিয়ে নিয়েছিলেন এবং তাঁর পুত্র যীশুকে তাঁর জন্যে ক্রন্দনরত অবস্থায় অন্ধকারের মধ্যে রেখে চলে গিয়েছিলেন, ‘‘কারণ তিনি জগতকে এমন প্রেম করিলেন যে, তাঁহার একমাত্র পুত্রকে দান করিলেন’’ - পাপ এবং নরক থেকে আপনাকে এবং আমাকে রক্ষা করার জন্য। নিশ্চয়ই ঈশ্বর ক্রুশের উপরে তাঁর জন্যে তাঁর পুত্রের কান্না্র স্বর শুনতে পেয়েছিলেন, ‘‘ঈশ্বর আমার, ঈশ্বর আমার, তুমি কেন আমাকে পরিত্যাগ করিয়াছ?’’ নিশ্চয়ই পিতা ঈশ্বরের অশ্রু বয়ে চলেছিল যখন তিনি মুখ ফিরিয়ে নিয়েছিলেন যখন যীশু আমাদের পাপ সেই ক্রুশের উপরে একাই বহন করে নিয়ে যাচ্ছিলেন!


প্রিয়পাঠক, ক্রুশের উপর যন্ত্রণাবিদ্ধ যীশুকে স্মরণ করুন, কেননা যীশুই আপনার ও আমার পাপের বিকল্প কোরবানি, "কোন পশুর রক্ত নয় কিন্তু কেবল যীশুর রক্ত  আমাদের পরিত্রাণ নিশ্চিত করেছেন।"

27 views0 comments

Comentarios


bottom of page